গণহত্যা, বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ নিয়ে আন্তর্জাতিক সেমিনার: নিবন্ধন শুরু

Comments

বাংলাদেশের স্বাধীনতার ৫০ বছর ও বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষ উপলক্ষে আগামী ২২-২৩ নভেম্বর ২০১৯ বাংলা একাডেমিতে গণহত্যা-নির্যাতন ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক গবেষণা কেন্দ্রের উদ্যোগে তৃতীয় আন্তর্জাতিক সম্মেলন আয়োজন করা হয়েছে। এই সম্মেলনে আয়োজকরা মুক্তিযুদ্ধ ও বঙ্গবন্ধু বিষয়ে আগ্রহী ১০০ জন প্রতিনিধিকে অংশগ্রহণের সুযোগ দিচ্ছে।

উল্লেখ্য বরেণ্য ইতিহাসবিদ মুনতাসীর মামুন কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত এবং প্রত্যক্ষ তত্ত্বাবধানে পরিচালিত “গণহত্যা-নির্যাতন ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক গবেষণা কেন্দ্র”। সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের আর্থিক সহযোগিতায় চলছে এই গবেষণা কেন্দ্রটি। এই দক্ষিণ এশিয়ায় গণহত্যা-নির্যাতন নিয়ে কাজ করা প্রথম প্রতিষ্ঠান। এই প্রতিষ্ঠান গণহত্যা-মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে আন্তর্জাতিক পরিসরে কাজ করে যাচ্ছে। তাদের আয়োজনে অনুষ্ঠিতব্য আন্তর্জাতিক সম্মেলন নিয়ে বিস্তারিত জানা যাবে তাদের অফিসিয়াল ফেসবুক পেইজে 

ডেলিগেট রেজিস্ট্রেশনের জন্য ফেসবুকে একটি ইভেন্ট খোলা হয়েছে। সেখানে রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া বিস্তারিতভাবে উল্লেখ করা হয়েছে। পাঠকদের সুবিধার্থে গবেষণা কেন্দ্রের পক্ষ থেকে প্রচারিত প্রক্রিয়াটি নিচে হুবুহু উল্লেখ করা হল:

**স্পেশাল ডেলিগেট রেজিস্ট্রেশন**

বাংলাদেশের স্বাধীনতার ৫০ বছর ও বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষ উপলক্ষে আগামী ২২-২৩ নভেম্বর ২০১৯ বাংলা একাডেমিতে গণহত্যা-নির্যাতন ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক গবেষণা কেন্দ্রের উদ্যোগে তৃতীয় আন্তর্জাতিক সম্মেলন আয়োজন করা হয়েছে। এবারের প্রতিপাদ্য বিষয় “After the Genocide: Fifty years of Bangladesh and Birth Centenary of Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman”। এই সম্মেলনে ইতালি, কম্বোডিয়া, জাপান, তুরষ্ক, মায়ানমার, যুক্তরাজ্য ও ভারত থেকে ৩০ জন অধ্যাপক, গবেষক ও একাত্তরের সাথে সরাসরি সম্পৃক্ত সুহৃদগণ উপস্থিত থাকবেন।

গণহত্যা জাদুঘর কর্তৃক আয়োজিত এই আন্তর্জাতিক সম্মেলনে ‘স্পেশাল ডেলিগেট’ রেজিস্ট্রেশন আজ থেকে শুরু হচ্ছে। আগ্রহীগণ আজ ২২ অক্টোবর থেকে আগামী ১০ নভেম্বর পর্যন্ত রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন। উল্লেখ্য গণহত্যা জাদুঘরে সাথে এই সেমিনারটির যৌথ আয়োজক অসাম্প্রদায়িক ও গণমুখি ইতিহাস চর্চার জাতীয় প্রতিষ্ঠান ‘বাংলাদেশ ইতিহাস সম্মিলনী’। ইতিহাস সম্মিলনীর সম্মানিত সদস্যবৃন্দ আন্তর্জাতিক সম্মেলনে সরাসরি ডেলিগেট হিসেবে অংশগ্রহণ করতে পারবেন।

এর বাইরে (যারা সেমিনারে অংশগ্রহণে ইচ্ছুক কিন্তু ইতিহাস সম্মিলনীর সদস্য নন) আগ্রহীদের ভেতর সর্বোচ্চ ১০০ জন এবারের সম্মেলনে অংশগ্রহণ করার সুযোগ পাবেন।

রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন করতে প্রদেয় তথ্যাবলীঃ
(ইংরেজিতে পূরণীয়)
১) নাম
২) পেশা
৩) মোবাইল নাম্বার
৪) ইমেইল এড্রেস
৫) ঠিকানা

উদাহরণঃ
Mohammad Mehedi Hasan
Student, Gov. Titumir College
+8801884******
[email protected]
Amtoli, Mohakahali, Dhaka

আপনার তথ্য আমাদের পাঠাতে পারেন দুটি উপায়েঃ
১) তথ্যগুলো আমাদের অফিসিয়াল ফেসবুক পেইজের (1971: Genocide-Torture Archive & Museum) ম্যাসেজ বক্সে পাঠান।
অথবা,
২) আপনার মোবাইল থেকে তথ্যগুলো SMS করুন 01843377733 অথবা 01884500002 এই দুটো নাম্বারের যে কোন একটিতে।

বিশেষ দ্রষ্টব্যঃ
* আপনাদের প্রাপ্ত তথ্য থেকে যাচাই-বাছাই করে ১০০ জন ডেলিগেট নির্বাচন করা হবে।
* নির্বাচিতদের কনফার্মেশন email/SMS পাঠানো হবে।
* সম্মেলন সংক্রান্ত আপডেটের জন্য আমাদের ইভেন্টে নজর রাখুন (https://bit.ly/2VRw23U)।
* অংশগ্রহণকারীদের নাস্তা/লাঞ্চ, কনফারেন্স কিট (সুভ্যেনির, প্যাড, কলম ইত্যাদি) প্রদান করা হবে।
* যে কোন প্রয়োজনে নির্দ্বিধায় যোগাযোগ করতে পারেন গবেষণা কেন্দ্রের উপ-পরিচালক জনাব রোকনুজ্জামান বাবুল (ফোন- ০১৮৪৩৩৭৭৭৩৩) ও গবেষণা কর্মকর্তা জনাব আরিফ রহমান (ফোন- ০১৮৮৪৫০০০০২) এই দুজনের সাথে।

 

বাঙালীয়ানা/এআর

মন্তব্য করুন (Comments)

comments

Share.