রোকেয়া হলেও স্থগিত আছে ভোট গ্রহণ

Comments

ডাকসু নির্বাচনে স্থগিত রাখা হয়েছে রোকেয়া হলের নির্বাচন। সকালে ভোট গ্রহনে বিলম্ব হওয়ার পর এখন স্থগিত আছে ভোট গ্রহণ।

ভোট গ্রহনের আগে বিভিন্ন প্যানেলের প্রার্থীদের ছয়টি ব্যালট বক্স দেখানো হয়েছিলো। কিন্তু রোকেয়া হলে আসার কথা মোট নয়টি ব্যালট বক্স। আরও তিনটি বক্স দেখাতে প্রশাসন ব্যর্থ হওয়ায় শিক্ষার্থীরা প্রতিবাদ করে। তখন(সকালে) ভোট গ্রহণ কিছুটা বিলম্ব হয় এবং দেরীতে শুরু হয়।

পরে শিক্ষার্থীরা জানতে পারে, পাশের কোনো এক কক্ষে তিনটি ব্যালট বক্স রাখা আছে। শিক্ষার্থীরা তা দেখতে চাইলে প্রশাসন তা দেখতে দেয়নি। পরে সেখানে শিক্ষার্থীরা জড়ো হতে শুরু করে ও বিক্ষোভ করে। কিছুক্ষন পর সেখানে ভিপি পদপ্রার্থী সহ অন্যান্য প্যানেলের প্রারথীরাও চলে আসেন। তবে ছাত্রলীগ সমর্থিত কাউকে সেখানে দেখা যায়নি।

Posted by লামিয়া তাসনীম on Sunday, March 10, 2019

পরে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা দরজা ভেঙে ফেলে কক্ষে প্রবেশ করে ও ব্যালট বক্স তিনটি উদ্ধার করে। বক্সগুলো ভেঙে ফেললে দেখা যায় তার ভেতরেও রয়েছে ব্যালট পেপার। তবে সেখানে কোনো সিল দেওয়া ছিলো না। শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করে বলেন, এত ব্যালট পেপার কেন? সেগুলো লুকিয়েই বা রাখা হবে কেন?

এই পরিস্থিতে, সেখানে ভোট গ্রহণ বন্ধ করে রাখা হয়েছে। রিটার্নিং কর্মকর্তার দায়িত্বে থাকা হলের হাউস টিউটর দিলারা জাহান বলেন, “রোকেয়া হলে মোট ভোটার চার হাজার ৬০০। এর মধ্যে দুই হাজার বেশি ব্যালট ভোট কক্ষে আনা হয়। বাকিগুলো পাশে রাখা হয়েছিল। এগুলো শেষ হলে পরে সেগুলো নিয়ে আসা হতো। কিন্তু সেগুলো কে বা কারা ভেঙে ছিনতাই করল। এখন স্যারেরা এসেছেন। কিছুক্ষণ পর ভোট গ্রহণ শুরু হবে।”

বাঙালীয়ানা/জেএইচ

মন্তব্য করুন (Comments)

comments

Share.