সুবীর নন্দীর চিকিৎসাপত্র সিঙ্গাপুর পাঠানোর নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

Comments
সুবীর নন্দীর চিকিৎসার বিষয়ে সার্বক্ষণিক খোঁজ খবর রাখছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি শিল্পীর মেডিকেলের সকল কাগজপত্র সিঙ্গাপুরে পাঠানো এবং সেখানকার বিশেষজ্ঞদের মতামত নেয়ার জন্য ডা. সামন্তলাল সেনকে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দিয়েছেন বলে বাঙালীয়ানাকে জানিয়েছেন শিল্পী রফিকুল আলম।

শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল, ২০১৯, সন্ধ্যায় সুবীর নন্দীর চিকিৎসার বিষয়ে অবহিত করতে গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন সংগীত শিল্পী কুমার বিশ্বজিৎ, তপন চৌধুরী, রফিকুল আলম এবং ডা. সামন্তলাল সেন। তারা শিল্পীর চিকিৎসা ও শারীরিক অবস্থা সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রীকে বিস্তারিত জানান। প্রধানমন্ত্রী তাদেরকে শিল্পীর চিকিৎসার ব্যাপারে আশ্বস্ত করেন বলে জানান রফিকুল আলম।

এদিকে বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল, ২০১৯, গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আইএসপিআর জানায় যে  শিল্পী সুবীর নন্দী শারীরিক অবস্থা এখনও আশংকামুক্ত নয়। হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন নন্দিত কণ্ঠশিল্পী সুবীর নন্দীর শারীরিক অবস্থা অপরিবর্তিত রয়েছে। তাকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছে।

সুবীর নন্দী রোববার, ১৪ এপ্রিল, ২০১৯, রাত ১১টার দিকে পরিবারিক অনুষ্ঠান শেষে সিলেট থেকে ঢাকায় ফেরার পথে ট্রেনে অসুস্থ হয়ে পড়লে ট্রেন থেকে নামিয়ে তাকে গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) ভর্তি করা হয়। তাকে করোনারী কেয়ার ইউনিটে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছিল।

সুবীর নন্দী দীর্ঘদিন ধরে কিডনির জটিলতায় ভুগছেন। নিয়মিতভাবে তার ডায়ালাইসিস করতে হয়।

দীর্ঘ ৪০ বছরের ক্যারিয়ারে সুবীর নন্দী গেয়েছেন আড়াই হাজারেরও বেশি গান। বেতার, টেয়েছে লিভিশন এবং চলচ্চিত্রে তার রয়েছে অসংখ্য জনপ্রিয় গান। ১৯৮১ সালে তার প্রথম একক অ্যালবাম ‘সুবীর নন্দীর গান’ বাজারে আসে। তবে চলচ্চিত্রে তিনি প্রথম গান করেন ১৯৭৬ সালে আব্দুস সামাদ পরিচালিত ‘সূর্যগ্রহণ’ চলচ্চিত্রে।

চলচ্চিত্রে প্লেব্যাক করে চারবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেছেন তিনি। আর চলতি বছরে সংগীতে অবদানের জন্য বাংলাদেশ সরকার সুবীর নন্দীকে দেশের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ বেসামরিক সম্মাননা একুশে পদকে ভূষিত করেছে।

বাঙালীয়ানা/এসএল

মন্তব্য করুন (Comments)

comments

Share.